ব্রেকিং নিউজ-
পাঁচবিবি সমিরণ নেছা মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় নানা সমস্যায় জর্জরিত** শনিবার রংপুরে সাংবাদিকদের মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ** কুড়িগ্রামে ৪০তম জাতীয় সাইক্লিং প্রতিযোগীতার উদ্বোধনী ** পীরগঞ্জে পাষান্ড স্বামীর নির্যাতনের স্বীকার নাবালিকা গৃহ বধু ** রাণীশংকৈলে পুকুর খনন করতে গিয়ে ২টি বিষ্ণু মুর্তি উদ্ধার** রংপুরে বখাটেদের হুমকিতে স্কুলে যেতে পারছে না ১০ম শ্রেণীর ছাত্রীর** রংপুরে রিপোর্টার্স ইউনিটির তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ** রনজিৎ দাসের একক চিত্র প্রদর্শনী ‘রুপসী রংপুর’ সমাপনী** রংপুরে প্রধানমন্ত্রীর নিকট স্মারকলিপি পেশ ** রংপুরে দারিদ্র শিক্ষার্থীদের মাঝে স্কুল ড্রেস, শিক্ষা সামগ্রী ও ঋণ বিতরণ**

শপথ নিয়েই ঘরের সমস্যা সমাধানে ছুটলেন বাণিজ্যমন্ত্রী

নিউজ ডেক্স

রংপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম , সারা বাংলা

8 January, 2019 -> 12:58 am.

তৈরি পোশাক খাতের শ্রমিকদের বেতনবৈষম্য নিয়ে কয়েক দিন ধরে চলমান শ্রমিক অসন্তোষ কিভাবে সমাধান করা যায় এ নিয়ে আলোচনা করতে পোশাক প্রস্তুত ও রপ্তানিকারকদের সংগঠন বিজিএমইএর ভবনে ছুটে গেলেন বিজিএমইএর সাবেক সভাপতি ও সদ্য শপথ নেওয়া বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। গতকাল সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে তিনি রাজধানীর পান্থপথে বিজিএমইএ ভবনে বৈঠক করেন বলে জানা যায়। বিজিএমইএ সভাপতি মো. সিদ্দিকুর রহমানের নেতৃত্বে অনুষ্ঠিত এই বৈঠকে অন্যদের মধ্যে ছিলেন বিজিএমইএর সাবেক সভাপতি খুলনা থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য আব্দুস সালাম মুর্শেদী, ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন, বিজিএমইএর সাবেক সভাপতি মো. আতিকুল ইসলাম, সহসভাপতি এস এম মান্নান কচি, মোহাম্মদ নাছির ও বিজিএমইএর পরিচালকরা। সভা সূত্রে জানা যায়, পোশাক খাতের চলমান সমস্যা সমাধানে নবাগত বাণিজ্যমন্ত্রী ছুটে আসায় সংগঠনের বর্তমান ও সাবেক নেতারা অভিভূত হন। বাণিজ্যমন্ত্রীকে কাছে পেয়ে তাঁরা অভিনন্দন জানান। টিপু মুনশি সংগঠনের নেতাদের জানান, যেকোনোভাবেই হোক পোশাক খাতের চলমান সমস্যা সমাধানে তাঁরা একসঙ্গে দৃঢভাবে কাজ করবেন। এ ছাড়া এসব সমস্যা সমাধানে নিয়মিত আলোচনা চালিয়ে যাওয়া হবে। এরই ধারাবাহিকতায় বাণিজ্যমন্ত্রী আজ মঙ্গলবার শ্রম মন্ত্রণালয়ে শ্রম প্রতিমন্ত্রী মুন্নুজান সুফিয়ানের সঙ্গে বৈঠক করবেন বলেও জানান। বিজিএমইএ সভাপতি মো. সিদ্দিকুর রহমান কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি মন্ত্রী হিসেবে নন, তিনি আমাদের অভিভাবক হিসেবে উত্তরার চলমান শ্রমিক অসন্তোষ নিয়ে করণীয় ঠিক করতে এসেছেন। তাঁকে পেয়ে আমরা অত্যন্ত আনন্দিত।’ সরকারঘোষিত সর্বশেষ মজুরি কাঠামো অনুযায়ী একজন গার্মেন্ট শ্রমিকের ন্যূনতম মজুরি আট হাজার টাকা। সেই মজুরি কাঠামো অনুযায়ী ডিসেম্বর মাসের বেতনের সঙ্গে চলতি মাসের ১০ তারিখের মধ্যে নতুন কাঠামোর মজুরি পাবে শ্রমিকরা। গত অক্টোবর মাসে এই মজুরি ঘোষণা করা হয়। এর আগে মজুরি ছিল পাঁচ হাজার ১০০ টাকা। আন্দোলনরত শ্রমিকরা বলছে, সর্বশেষ কাঠামোর বেতন এখনো মালিকরা তাদের দিচ্ছেন না।