ব্রেকিং নিউজ-
দেশটাকে আর ৭১-এ ফিরে নিবেননা: শিবলী সাদিক এমপি:** আওয়ামীলীগ ক্ষমতায় আসলে অসমাপ্ত কাজগুলো শেষ করা হবে মোতাহার হোসেন** শেখ কল্লোল আহম্মেদের ৪র্থ মৃত্যু বার্ষিকীতে রিপোর্টার্স ক্লাবে দোয়া মাহফিল** রংপুর ৬ আসনে ড, শিরিন শারমিনের নির্বাচনী প্রচারনা শুরু ॥ মানুষের ঢল ॥ ** বেগম রোকেয়া দিবস উদযাপন উপলক্ষে রংপুরে জয়িতাগনকে সংবর্ধনা ** নীলফামারী-৪ আসনে প্রার্থিতা ফিরে পেয়েছেন স্বতন্ত্র দুই প্রার্থী ** নীলফামারীতে নারী শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার** রংপুরের শ্যামপুরে এতিমখানায় কোম্বল বিতরন** হাতীবান্ধায় ট্রাকের ধাক্কায় ঝরে গেল এক নারীর প্রাণ** পলাশবাড়ীতে আওয়ামী লীগের কর্মী সভা অনুষ্ঠিত**

কারো সহযোগিতায় ক্ষমতায় যেতে চাই না প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেক্স

রংপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম , বিষেশ বুলেটিন

5 October, 2018 -> 2:44 am.

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, থাকে লক্ষ্মী যায় বালাই কিন্তু কারো (নরেন্দ্র মোদি) সহযোগিতায় ক্ষমতায় যেতে চাই না। জনগণ ভোট দিলে আছি, না দিলে নাই। তিনি বলেন, মানুষের কাছে উন্নয়ন যাতে দৃশ্যমান হয় সেজন্য আমার ইচ্ছা ছিল পরপর দুই টার্ম ক্ষমতায় থাকা। আমরা তা পেরেছি। এখন আমার কাছে ক্ষমতা- থাকে লক্ষ্মী যায় বালাই। আমার কোনও চিন্তা নাই। প্রধানমন্ত্রী বলেন, জাতিসংঘের সম্মেলনে বিশ্বনেতৃবৃন্দের মধ্যে যার সঙ্গেই কথা বলেছি, তারা বলেছেন, তারা চান আগামীতেও যেন আমার সঙ্গে দেখা হয়। কিন্তু আমাদের দেশের নির্বাচন নিয়ে কী হবে না হবে, তা নিয়ে কোনও কথা হয়নি। তবে যাদের সঙ্গে কথা বলেছি, তারা আমাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন, আমি যেন পুনরায় ক্ষমতায় আসি। আমি বলেছি জনগণ ভোট দিলে আছি, না দিলে নাই। বুধবার গণভবনে সংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রী বলেন, ১৯৯৬ থেকে ২০০১ সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় থেকে যে উন্নয়ন করেছিলাম তা বিএনপি আসার পর থেমে যায়। আমার ইচ্ছা ছিল আমি যদি একটানা দুইবার থাকতে পারি তবে উন্নয়নগুলো দৃশ্যমান হবে। মানুষ তার সুফলটা পাবে। দুই টার্ম থেকেছি। মানুষ তার সুফল পেয়েছে। ভারতের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন সরকারকে আর সমর্থন না দিতে সাবেক প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহার অনুরোধের বিষয়ে শেখ হাসিনা বলেন, তিনি (এস কে সিনহা) ভারতের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে আমাদের সমর্থন না দেওয়ার জন্য বলে এসেছেন। অনেকেই যাচ্ছেন, বিএনপিও গেছে, সমর্থন না দিতে বলে এসেছে। আমরা কারো মুখাপেক্ষী হয়ে রাজনীতি করি না। আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে এ দেশের জনগণ। আমরা এ দেশের জনগণের জন্য রাজনীতি করি। তারা আমাদের চায় কি না সেটাই বিচার্য বিষয়।